বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

সৌদি আরবের কারারুদ্ধ একটিভিস্ট আলবাজাদির জন্য “গণ অনশন”

সৌদি মানবাধিকার কর্মী মোহাম্মদ আল-বাজাদি গত কয়েক সপ্তাহ ধরে সৌদি টুইটারস্ফেয়ারে অনেক বেশী মনোযোগ আকর্ষণ করছে। আল বাজাদি, সৌদি নাগরিক এবং রাজনৈতিক অধিকার সংস্থার (সৌদি সিভিল এন্ড পলিটিক্যাল রাইটস অ্যাসোসিয়েশন বা এসিপিআরএ) অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা এবং রিয়াদে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সামনে অযৌক্তিক গ্রেফতার বন্ধ করার আহ্বান জানিয়ে আয়োজিত এক প্রতিবাদে অংশ নেবার পর, ২১ মার্চ, ২০১১ থেকে তিনি কারারুদ্ধ হয়ে আছেন। তিনি গোপনে প্রচেষ্টা চালান এবং গত এপ্রিলে তাকে চার বছরের কারাদণ্ড প্রদান করা হয়

১৪ নভেম্বর তারিখে, এসিপিআরএ নীচের এই বিবৃতিটি প্রদান করে [আরবী ভাষায়]:

في آخر اتصال هاتفي للناشط الحقوقي محمد بن صالح البجادي على زوجته، في تاريخ 3 ذو القعدة 1433هـ، الموافق 19 سبتمبر 2012م، أخبرها أنه سيضرب عن الطعام فور انهاءه للمكالمة احتجاجا على سوء معاملته، ثم وردت أنباء عن نقله بعد ذلك إلى زنزانة انفرادية وعزله عن العالم الخارجي، ومنذ تاريخ اعلانه للإضراب عن الطعام لم يرد منه أي اتصال هاتفي

১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১২ তারিখে মানবাধিকার কর্মী মোহাম্মদ আল-বাজাদির করা শেষ ফোনে তিনি তার স্ত্রীকে বলেন যে তিনি এই কথা বলা শেষ করার পর বাজে আচরণের বিরুদ্ধে হয়ত এক অনশন করাতে পারেন। আমাদের সূত্র জানাচ্ছে যে এরপর তাকে এক নির্জন কারাকক্ষে পাঠিয়ে দেওয়া হয়।যখন থেকে তিনি অনশনের ঘোষণা দিয়েছেন, এরপর থেকে তার কাছ থেকে আর কোন ফোন আসেনি।

গতকাল, ৯ ডিসেম্বর, @ফ্রিআলবাজাদি ঘোষণা প্রদান করেছেন যে, ১০ ডিসেম্বর তারিখে আল-বাজাদির সমর্থনে এক গণ অনশন পালন করা হবে, যা কিনা আন্তর্জাতিক মানবাধিকার দিবস:

عش تجربة البجادي في السجن وأعلن اضرابك غدا عن الطعام…

@ফ্রিআলবাজাদি: কারাগারে আল-বাজাদি যে সমস্ত অভিজ্ঞতার মুখোমুখি হয়েছেন সেই সব অভিজ্ঞতার মুখোমুখি হউন এবং আগামীকাল আপনারা, নিজেদের অনশন-এর কথা ঘোষণা করুন…।

“আল-বাজাদিকে রক্ষা করুন” নামক প্রচারণার লোগো

সংস্কারপন্থী দশজন ব্যক্তিত্ব ঘোষণা প্রদান করেছেন যে #سأشارك_غدا_بالإضراب_عن_الطعام_تضامنا_مع_إضراب_البجادي (আল-বাজাদির সমর্থনে আমি এই অনশন ধর্মঘটে অংশ গ্রহণ করব) নামক এই হ্যাশট্যাগের অধীনে তারা গণ অনশনে অংশ নেবেন, যার মধ্যে রয়েছে একটিভিস্ট মোহাম্মদ আল-খাতানি, প্রাক্তন রাজনৈতিক কারাবন্দী মাতরুক আল-ফালাহ এবং বিখ্যাত ব্লগার ফোয়াদ আল-ফারহান, যাদের সাথে আরো ২০০ জন নাগরিক যোগ দেবেন। তবে এর আগে গত বছরের মার্চে আল-বাজাদির সমর্থনে অনুষ্ঠিত এর আগের গণ অনশনে মাত্র ৩৮ জন ব্যক্তি অংশ নিয়েছিল। অংশগ্রহণকারীর সংখ্যার কারণে একটিভিস্টরা একে সফল হিসেবে ঘোষণা করেছে

বিক্ষোভ প্রদর্শনের উপর এক কঠোর নিষেধাজ্ঞা জারীর কারণে, সৌদি আরবের নাগরিকরা জনসম্মুখে ভিন্ন মত প্রকাশের জন্য নতুন নতুন উপায় উদ্ভাবন করেছে, যেগুলোর বেশীরভাগই এসেছে তরুণদের কাছ থেকে।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .