বন্ধ করুন

গ্লোবাল ভয়েসেসকে শক্তিশালী করতে আমাদের সহায়তা করুন

আমরা ১৬৭টি দেশের উপর রিপোর্ট করি। আমরা ৩৫টি ভাষায় অনুবাদ করি। আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস।

প্রায় ৮০০ এর বেশী গ্লোবাল ভয়েসেস এর লেখক একসাথে কাজ করছে আপনার কাছে অজানা সব গল্প তুলে ধরতে। কিন্তু আমাদের পক্ষে একা সব করা কঠিন। আমাদের অনেকেই স্বেচ্ছাসেবক হলেও আমাদের সম্পাদক, প্রযুক্তি এবং অ্যাডভোকেসী প্রকল্প ও সামাজিক অনুষ্ঠানের ব্যয়ভারের মেটানোর জন্যে আপনাদের সাহায্য প্রয়োজন।

আমাদের সহায়তা করুন এখানে ক্লিক করে: »
GlobalVoices পাওয়া যাবে আরও জানুন »

তেহরানের মারাত্নক বায়ু দূষণের সচিত্র বিবরণ

বহু বছর ধরে লক্ষাধিক ইরানিদের জন্য বায়ু দূষণ একটি প্রকাশ্য শত্রুতে পরিণত হয়েছে। তাই এটা খুব বিস্ময়কর খবর হবে না যখন বায়ু দূষণের জন্য সরকার কিছু দিনের জন্য সরকারী প্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ রাখবে।

এই মাসের শুরুতে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ঘোষণা করেছে, গত বছর ইরানের রাজধানী তেহরানে বায়ু দূষণের কারণে ৪,৪০০ এর বেশি লোক মৃত্যুবরণ করেছে।

ধূলিমলিন তেহরান

ইরানি নেট নাগরিকরা তেহরানের বায়ু দূষণ জনিত অনেক কার্টুন শেয়ার করেছেন। অমিদ ইরুন.কমে ধূলিমলিন তেহরানের একটি কার্টুন এঁকেছেন।

অমিদ, ইরুন.কম

মানা নেস্তানি দূষণ নিয়ে করা তাঁর কার্টুনে রাজনীতির কথা বলতে ভুলে যাননিঃ “দাদা” বলেছেন, “আবার সকাল হয়েছে। এখন আমার জাগা উচিৎ…. এই সব খারাপ খবর… মৃত্যুদণ্ড, জেল…”। “দাদা” তাঁর দিন শুরুর সময় একটা গভীর শ্বাস নিলেন এবং “তেহরানের বাতাসে মারাত্মক দূষণ” শিরোনাম সম্বলিত একটি ম্যাগাজিন পাশে ফেলে রাখলেন।

মানা নেস্তানি, মারদমাক।

অন্ধকারাছন্ন শহর

এখানে একটি ভিডিও রয়েছে যেখানে মেহেরাবাদ বিমানবন্দরে দূষিত অন্ধকারাছন্ন তেহরানের বিকেলের চিত্র তুলে ধরেছে।

কোন অক্সিজেন নাই

জেয়তুন নামের একজন ইরানিয়ান ব্লগার বলেছেন: [ফার্সি]

আমরা সব সময় বলে অভ্যস্ত যে দেশে শ্বাস নেবার মতো কোন জায়গা নাই। এটা বলে আমরা মূলত শাসকদের রাজনৈতিক এবং সামাজিক নিপীড়নের কথাই উল্লেখ করে থাকি। কিন্তু এখন আক্ষরিক অর্থেই শ্বাস নেবার মতো এখানে কোন অক্সিজেন নাই। যে শাসনব্যবস্থা তার নাগরিকদের জন্য অক্সিজেন সরবরাহ করতে পারেন না সমগ্র বিশ্বে তার শাসন উপায় রপ্তানির দাবি উঠেছে।

ইরানের অন্যান্য শহরের জনগণও যে এই দূষণের শিকার তা আমাদের ভুলে গেলে চলবে না। উদাহরণ স্বরূপ দক্ষিণের শহর আহআযের [ফার্সি] কথা বলা যায়।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .


বিশ্বের অঞ্চলসমূহ

দেশ

ভাষা

বিশেষ টপিক

লেখাটির সাথে আছে