উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ফ্যাসিবাদবিরোধিতা হাঙ্গেরীকে ঐক্যবদ্ধ করেছে

২রা ডিসেম্বর রবিবার বুদাপেস্টে হাজার হাজার হাঙ্গেরীয় ইহুদি বিদ্বেষের বিরুদ্ধে একটি প্রতিবাদ সমাবেশে একত্রিত হয়েছিল। ক্ষমতাসীন ও বিরোধী দলের রাজনীতিবিদরাও হাঙ্গেরীয় সংসদে প্রায় ১৭ শতাংশ আসনের অধিকারী অতি-ডানপন্থী জব্বিক পার্টির সদস্য মার্তন গিয়োনগিয়োসির একটি বিতর্কিত মন্তব্যের বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছে। ২৬শে নভেম্বর তারিখে গিয়োনগিয়োসি “ইহুদি দেরকে জাতীয় নিরাপত্তার জন্যে হুমকি হিসেবে তালিকাতে নথিভুক্ত করা”র আহবান জানিয়েছেন

এটা ছিল এধরনের দ্বিতীয় সমাবেশ। প্রথমটি  হয়েছিল ২৭শে নভেম্বর তারিখে। তবে কোথাও মাত্র কয়েক শ’র বেশি মানুষ অংশগ্রহণ করেনি।

জেরুজালেমের জন্যে একত্রিত সকলে নামের একটি ফাউন্ডেশন ২রা ডিসেম্বরের বিক্ষোভটি [হাঙ্গেরীয় ভাষায়] সংগঠিত করে। রয়টার্স অনুসারে এটি ১০,০০০ এর কাছাকাছি জনসমাবেশ সৃষ্টি করেছে। (হাঙ্গেরীয় পুলিশের হিসেব অনূসারে [হাঙ্গেরীয় ভাষায়] তুলনা করতে গেলে, জাতীয় ছুটির দিনে সরকার-সংগঠিত ইভেন্টে উপস্থিত ছিল আনুমানিক ১লক্ষ ৫০হাজার, নাগরিক আন্দোলনের প্রতিবাদে ২০হাজার আর অতি-ডান পার্টির সমাবেশে এসেছিল হাজার দুয়েক জনগণ।)

গিয়োনগিয়োসি পরে তার বক্তব্যের জন্যে ক্ষমা চেয়েছেন, কিন্তু হাঙ্গেরীতে অতি-ডানপন্থার উত্তরোত্তর বৃদ্ধি সম্পর্কে জনগণের মধ্যে বিতর্কটি আবার উঠে এসেছে – এবং এটা হাঙ্গেরীয় জাতিকে অনেকটাই সংঘবদ্ধ করে ফেলেছে।

কোপ্পানি মোন্দিঅ ব্লগের কোপো লিখেছেন  [হাঙ্গেরীয় ভাষায়] যে এটাই সংসদে জোব্বিকের শেষ চমৎকারিত্ব:

[...] তিনি [গিয়োনগিয়োসি] একজন নাৎসী না হলে এরকম কিছু বলতেন না। জোব্বিক একটি নাৎসী দল না হলে তারা তাকে দুয়ো দিতো, অথবা অন্ততঃ তার থেকে নিজেদের দূরত্ব বজায় রাখতো, এবং দল থেকে তাকে অযোগ্য ঘোষণা করতো। কিন্তু এরকম কিছু হয়নি। কারণ মার্তন গিয়োনগিয়োসি একজন নাৎসী(বাদী) এবং জোব্বিক একটি নাৎসী দল। [...]

একটি গণতান্ত্রিক বিকল্প প্রতিষ্ঠানের (আইডিয়া) বালাশ বোজকেই তার ব্লগের একটি পোস্টে [হাঙ্গেরীয় ভাষায়] বিস্ময় প্রকাশ করেছেন কেন ৩৮৬জন সাংসদের কেউ “অন্ধকার তাদের গ্রাস করা”র সময় (অর্থাৎ গিয়োনগিয়োসি তার কুখ্যাত বিবৃতি প্রদানের সময়) কক্ষ ত্যাগ করেনি।

হাঙ্গেরীয় স্পেকট্রাম ঘটনার একদিন পরে ২৭শে নভেম্বর তারিখে লিখেছে সভাপতিত্বকারী বক্তাসহ চারজন এমপি তাদের পোশাকে ডেভিডের হলুদ তারকা পরিধান করে সংসদে প্রতিবাদ করেছিল – এবং কিছু কিছু প্রতিবাদকারী একই কাজ করেছিল সেই একইদিনে বাইরে অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সমাবেশের পাশাপাশি ২রা ডিসেম্বরের সমাবেশটিতে।

একজন প্রতিবাদকারীর পোশাকে ডেভিডের একটি হলুদ তারকা। ২রা ডিসেম্বর, ২০১২. ছবি, রেডজেড। অনুমতি নিয়ে ব্যবহৃত।

২রা ডিসেম্বরের সমাবেশটিতে উল্লিখিত রাজনীতিবিদরা জনতার উদ্দেশ্যে বক্তব্য রেখেছেন: ক্ষমতাসীন রক্ষণশীল ফিড্যাছ পার্টির উপদলীয় একংশের নেতা আন্তাল রোগান; সাবেক ‘ভারপ্রাপ্ত প্রধানমন্ত্রী’ গর্ডন বাজনাই এবং সমাজতান্ত্রিক পার্টির চেয়ারম্যান আত্তিলা মেস্টারহ্যাজি। বৃহত্তম হাঙ্গেরীয় অনলাইন নাগরিক আন্দোলন ‘প্রেস ফ্রিডম ইন হাঙ্গেরীতে সংবাদমাধ্যমেরস্বাদীনতার জন্যে এক মিলিয়ন’ [হাঙ্গেরীয়, ইংরেজি ভাষায়]  তাদের ব্লগে [হাঙ্গেরীয় ভাষায়] উল্লেখ করেছে যে দেশে বিদ্যমান পরিস্থিতি নিয়ে হাঙ্গেরীয়দের চিন্তা করার সময় এসেছে:

[...] যৌথ প্রতিবাদটি শুধু অন্ধকারতম সময়কে ডেকে আনা নাৎসী বক্তব্যের বিরুদ্ধে আমাদের ধিক্কার এবং তীব্র নিন্দা জ্ঞাপনের একটি ভাল সুযোগ ছাড়াও আমাদের) নিজেদেরকে এই প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করার একটি সুযোগ: কেন এবং কিভাবে হাঙ্গেরী এতটা দূর চলে এসেছে যে আজকে শিক্ষিত বিশ্ব বুদাপেস্টে সংসদে যা ঘটছে তার মর্মাহত পর্যবেক্ষক মাত্র। [...]

২রা ডিসেম্বর সমাবেশের বিক্ষোভকারীরা। ছবি, রেডজেড। অনুমতি নিয়ে ব্যবহৃত।

ক্যাত্তোস মিয়েরছে (দ্বৈতমান)-এর ব্লগাররা উল্লেখ করেছে [হাঙ্গেরীয় ভাষায়] যে বক্তারা হাঙ্গেরীর রোমা অথবা এলজিবিটিকিউ (লেসবিয়ান, সমকামী, উভকামী, হিজড়া, অস্বভাবী যৌনাচার) সংক্রান্ত বিষয়ে খুব কমই কথা বলেছে। ব্লগাররা এছাড়াও বর্তমান পরিস্থিতির জন্যে দেশে সকল রাজনৈতিক দলকে দায়ী করার ইঙ্গিত দিয়েছে:

[...] এবং হাঙ্গেরীয় দক্ষিণপন্থী অংশ এবং রক্ষনশীলরা কী ধরনের ভুল করার কারণে হাঙ্গেরীকে এতদূর এসেছে সে বিষয়ে অনেক কথা বলা হচ্ছে; তবে এটা দু:খজনক যে হাঙ্গেরীয় বামপন্থী এবং উদারদের ভুলের কথা খুব কমই উল্লেখ করা হয়েছে। তারপরেও (এখনো) তাদের দায়-দায়িত্ব রয়েছে!

পরবর্তীতে কেউ বৈষম্য এবং ফ্যাসিবাদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করার সময় আমরা আশা করি এই জিনিসগুলো তাদের মনে আসবে, তখন আমরা এমনকি আরো ভাল করে একটি প্রতিবাদে অংশগ্রহণ করার সুযোগ পাবো।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .