বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

ছবিতে সিরিয়ার ধ্বংসযজ্ঞ

এই পোস্টটি আমাদের সিরিয়া প্রতিবাদ ২০১১ সংক্রান্ত বিশেষ কভারেজের অংশ। 

সিরীয় আলোকচিত্রীরা সারা দেশ থেকে তোলা ছবির মাধ্যমে সিরিয়ার বিপ্লব প্রকাশ, প্রচার ও সংরক্ষণ করছেন, যেগুলো ধ্বংসের চিত্র বহন করছে। সীমিত প্রচার সত্ত্বেও, সিরিয়া থেকে যা উঠে আসছে তা যেন ভয়ংকর বাস্তবতার প্রতিচ্ছবি। নিজের দেশে অবস্থানকারী সিরীয়রা প্রতিনিয়ত তাদের দেশকে আক্ষরিক অর্থে বিদীর্ণ হতে দেখছে। যদিও ছবিগুলো কোন স্থানের অথবা কতজন লোক হামলার শিকার হয়েছে তা নিশ্চিত করার কোন নির্ভরযোগ্য ব্যবস্থা নেই, তবুও নিচের কিছু ছবি সিরিয়ার অবকাঠামো ও আবাসিক এলাকাগুলো কিভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে তা বোঝার জন্য নমুনা হিসেবে দেওয়া হল।

শত শত আলোকচিত্রীর মধ্যে, ইয়াজান হোমসি হোমস শহরের ধ্বংসের দৃশ্যগুলো আমাদের সাথে শেয়ার করেছেন। তিনি নিজেই এভাবে বর্ণনা করেছেনঃ

 يزن الحمصي – ابن حمص العدية – ناشط في الثورة السورية من حي الخالدية ثورة حتى النصر أو الشهادة …

@ইয়াজানহোমসিঃ মহান হোমসের পুত্র ইয়াজান হোমসি, সিরীয় বিপ্লবের একজন সক্রিয় কর্মী, খালিদিয়া পাড়া থেকে। বিজয়ী অথবা শহীদ না হওয়া পর্যন্ত বিপ্লব চলবে।

তিনি তাঁর ছবিগুলোতে হোমস শহরের দালানগুলোর ধ্বংসের বর্ণনা দিয়ে তা ফেসবুকে পোস্ট করেছেন। তাঁর ছবিগুলোর মধ্য থেকে দু’টি ছবি তাঁর অনুমতিক্রমে ব্যবহার করা হল।

হোমসঃ শহরের ১৪ টি ব্লক ১৩৯ দিন ধরে অবরুদ্ধ। হোমসের আশেপাশের জায়গাগুলো ধ্বংস করতে আসাদ মিলিশিয়া বাহিনী ছয় মাস ধরে সব ধরণের বিস্ফোরক ও ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবহার করেছে । সূত্রঃ ইয়াজান হোমসির ফেসবুক পাতা। অনুমতিক্রমে ব্যবহৃত হয়েছে।

বোমা বিস্ফোরণ ও পুড়ে যাওয়ার পর হোমসের পুরাতন বাজার। ০৬/১৩/২০১২, সূত্রঃ ইয়াজান হোমসির ফেসবুক পেজ। অনুমতিক্রমে ব্যবহৃত হয়েছে।

সিরীয় নিউজ নেটওয়ার্ক এস.এন.এন [আরবি] তাদের ওয়েবসাইটে দৈনিক ভিত্তিতে সিরিয়ার প্রধান তিনটি শহর – আলেপ্প, হোমস ও দামাস্কোর ধ্বংসযজ্ঞের ছবি নিয়মিত আপডেট এবং পোস্ট করতে সক্রিয় রয়েছে।

এখানে কিছু নির্বাচিত ছবি রয়েছেঃ

সিরিয়া – হোমস – ১০/২১/২০১২ – আল আসাদ বাহিনীর বোমাবাজির ফলে ধ্বংসযজ্ঞ- ছবি তুলেছেন মোহাম্মাদ ইব্রাহিম – শাম নিউজ নেটওয়ার্ক । এস.এন.এন রিপোর্টার (১০৮)। অনুমতিক্রমে ব্যবহৃত হয়েছে।

সিরিয়া – হোমস – ১০/২১/২০১২ – আল আসাদ বাহিনীর বোমাবাজির ফলে ধ্বংসযজ্ঞ- ছবি তুলেছেন মোহাম্মাদ ইব্রাহিম – শাম নিউজ নেটওয়ার্ক । এস.এন.এন রিপোর্টার (১০২)। অনুমতিক্রমে ব্যবহৃত হয়েছে।

সিরিয়া – হোমস – ১০/১৯/২০১২ – আল আসাদ বাহিনীর বোমাবাজির ফলে ধ্বংসযজ্ঞ- ছবি তুলেছেন মোহাম্মাদ ইব্রাহিম – শাম নিউজ নেটওয়ার্ক । এস.এন.এন রিপোর্টার (৩৯)। অনুমতিক্রমে ব্যবহৃত হয়েছে।

সিরিয়া – দামাস্কাস – ট্যাডামন – ০৭/০৯/২০১২ – আসাদ বাহিনীর বোমা বর্ষণের ফলে আশেপাশের এলাকায় ধ্বংসযজ্ঞ (৬)। ছবি সূত্রঃ শাম নিউজ নেটওয়ার্ক । এস.এন.এন, অনুমতি নিয়ে ব্যবহৃত।

সিরিয়া – দামাস্কাস – ইরবিন – ২৯/১০/২০১২ – আশেপাশের সাধারণ মানুষের উপর আসাদ বাহিনীর বোমা বর্ষণের কারনে দালান ধ্বংস। ছবি সূত্রঃ শাম নিউজ নেটওয়ার্ক । এস.এন.এন, অনুমতি নিয়ে ব্যবহৃত।

এই পোস্টটি আমাদের সিরিয়া প্রতিবাদ ২০১১ সংক্রান্ত বিশেষ কভারেজের অংশ।

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .