বন্ধ করুন

আমাদের স্বেচ্ছাসেবক সম্প্রদায় কাজ করে যাচ্ছে বিশ্বের কোনা থেকে না বলা গল্পগুলো আপনাদের কাছে তুলে ধরতে। তবে আপনাদের সাহায্য ছাড়া আমরা তা পারব না। আমাদের সম্পাদনা, প্রযুক্তি এবং প্রচারণা দলগুলোকে সুষ্ঠুভাবে চলতে সহায়তার জন্যে আপনারা আপনাদের দানের অংশ থেকে কিছু গ্লোবাল ভয়েসেসকে দিতে পারেন।

সাহায্য করুন

উপরের ভাষাগুলো দেখছেন? আমরা গ্লোবাল ভয়েসেস এর গল্পগুলো অনুবাদ করেছি অনেক ভাষায় যাতে বিশ্বজুড়ে মানুষ এগুলো সহজে পড়তে পারে।

আরও জানুন লিঙ্গুয়া অনুবাদ  »

মৌরিতানিয়া: সাংবাদিক কারাগারে

মৌরিতানিয়ার রাজধানী নোয়াকচোটের কেন্দ্রীয় কারাগারে এখনও মৌরিতানীয় সাংবাদিক ওবাইদ ওউলদ এ্যামেগন কে অন্তরীণ রাখা হয়েছে। তাঁর স্বাস্থ্যের অবনতি হয়েছে [আরবি ভাষায়]। দাস বিরোধী মানবাধিকার সক্রিয়তাবাদী, সাংবাদিক ও সক্রিয়তাবাদী সাংবাদিক ক্লাবের সহ- সভাপতি ওবাইদ ওউলদ এ্যামেগন। ইনিটি  নামে তাঁর একটি ওয়েব সাইট আছে।

আল আরাবিয়া টিভি নেটওয়ার্কে বই-পোড়ানো বিক্ষোভ নিয়ে বিবৃতি দেওয়ার পর ২৯ এপ্রিল রাজধানী নোয়াকচোট থেকে মৌরিতানিয়ান পুলিশ ওবাইদ ওউলদ এ্যামেগন কে গ্রেপ্তার করেন। বিক্ষোভের সময়, ইমানসিপেশন ইনিশিয়েটিভ মুভমেন্ট এর সভাপতি বিরাম, ইসলামী আইনশাস্ত্রের বই পুড়িয়ে ফেলেন। এ আন্দোলন এই বইটিকে দাসত্ব একত্রীকরণ এবং মানব পাচারের জন্য দায়ী বলে মনে করে।

সাম্প্রতিক অগ্নিবিক্ষোভ জনপ্রিয় মৌরিতানিয়ান সম্প্রদায়ের মধ্যে ব্যাপক বিতর্কের জন্ম দেয়। অগ্নিবিক্ষোভ বিরোধীরা বিরাম এর প্রাণদণ্ডের আহ্বান জানান। তাঁর মুক্তির জন্যও প্রতিবাদ সংগঠিত হয়। এ প্রতিবাদ বরাবরের মতই  চরম দমন-পীড়নের শিকার হয়। বিরাম পক্ষের শেষ বিক্ষোভের সময় কর্তৃপক্ষ বিক্ষোভকারীদের দিকে প্রচণ্ডভাবে টিয়ার গ্যাস নিক্ষেপ করেন এবং এতে একজন নিহত হয়।

صورة  للصحفي عبيد ولد إميجن من مدونة بوتلميت

ওবাইদ ওউলদ  এ্যামেগন- ছবিসূত্র: বাউটিলিমিট ব্লগ

সক্রিয়তাবাদী সাংবাদিকদের ক্লাব ওবাইদ ওউলদ এ্যামেগন কে গ্রেফতারের নিন্দা জানায়:

إن نادي الصحفيين الحقوقيين:
- يحمل السلطات المسؤولية عن سلامة وصحة الصحفي المعتقل.
- يلفت الانتباه الى المهمة المنوطة بالصحفي الحقوقي الذي من واجبه مواكبة الانشطة التي تقوم بها المنظمات والنشطاء الحقوقيين ونقل الاحداث لحظة بلحظة.
- يهيب نادي الصحفيين الحقوقيين بنقابات وروابط الصحفيين الموريتانيين ومنظمات المجتمع المدني لتحمل مسؤولياتهم تجاه الزميل عبيد المعتقل على خلفية ارائه كصحفي.
- يحذر من وجود ارادة أمنية لتوريط الصحفي عبيد ولد اميجن انطلاقا من آرائه الصحفية او انتاجه الفكري.
- يدعو لتوفير رعية صحية في اسرع وقت ممكن والسماح لذويه بالإطلاع على احواله.

সক্রিয়তাবাদী সাংবাদিকদের ক্লাব:
-গ্রেফতারকৃত সাংবাদিকের ভাল-মন্দ ও নিরাপত্তার জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবে।
- মিশনে নিযুক্ত সক্রিয়তাবাদী সাংবাদিকদের মনযোগ আকর্ষণ করা হচ্ছে যারা প্রতিষ্ঠানের, মানবাধিকার কর্মী এবং ঘটনার রিপোর্ট কভার করার জন্য নিয়োজিত আছেন তাঁরা যেন যা ঘটছে সে বিষয়ে প্রতিবেদন পেশ করেন।
- সাংবাদিকতার মত প্রকাশে গ্রেফতার হওয়া সহকর্মী ওবাইদ এর দায়িত্ব নিতে মৌরিতানিয়ান সাংবাদিক ইউনিয়ন, নেটওয়ার্ক, এবং সুশীল সমাজের প্রতিষ্ঠানের প্রতি আহ্বান জানানো হচ্ছে।
- সাংবাদিকতার মত এবং বুদ্ধিবৃত্তিক উপস্থাপনার জন্য পুলিশের একটি সভায় ওবাইদ কে জড়ানো হয়।
- যত দ্রুত সম্ভব ওবাইদ কে স্বাস্থ্যসেবা প্রদান এবং তাঁর আত্মীয় স্বজনদের তাঁর অবস্থা পর্যবেক্ষণের অনুমতি দেওয়ার আহ্বান জানানো হচ্ছে।

মৌরিতানীয় সক্রিয়তাবাদীরা তাঁর  মুক্তির দাবিতে একটি প্রচারাভিযান চালান:

إن الحملة الدولية لإطلاق سراح الصحفي عبيد ولد إميجن:
- تدعو كل الحقوقيين والصحافيين والمثقفين المواطنين، وكذا الشرفاء في موريتانيا وجميع بلدان العالم، والمتعاطفين مع ” معتقلي الرأي ” لمساند الحملة الدولية لإطلاق الصحفي عبيد ولد إميجن.

আন্তর্জাতিক প্রচারাভিযানে সাংবাদিক ওবাইদ ওউলদ এ্যামেগন এর মুক্তির দাবিতে সোচ্চার হওয়ার জন্য সকল সক্রিয়তাবাদী, সাংবাদিক, বুদ্ধিজীবি,  সৎ মৌরিতানীয় এবং বিশ্বের সকল নাগরিক ও “সচেতন কারাবন্দী”র প্রতি সহমর্মীদের সাংবাদিক ওবাইদ ওউলদ এ্যামেগন এর মুক্তির জন্য আন্তর্জাতিক প্রচারাভিযান সফল করার জন্য আহ্বান জানানো হয় ।

বাউটিলমিট টুডে  ব্লগ তার সাথে একাত্মতা প্রকাশ করে:

بوتلميت اليوم وهي تنشر هذا الخير تعلن تضامنها مع الزميل عبيد ولد إميجن إبن مدينة بوتلميت وتستنكر التصامم الذي تقوم به نقابة الصحفيين والرابطة واتحاد ا لمواقع الإلكترونية ووووو.
وتطالب بوتلميت اليوم كل الصحفيين الغيوريين علي حرية الكلمة بالتحرك والعمل علي إطلاق سراح عبيد وإعادة الاعتبار له وحقه في حرية التعبير.

এই প্রতিবেদনের ঘোষণায়, বাউটিলমিট টুডে সহকর্মী ওবাইদ ওউলদ এ্যামেগন এর সাথে একাত্মতা ঘোষণা করছে, যিনি এই বাউটিলমিট শহরের এবং যিনি  সাংবাদিক ইউনিয়ন, লীগ এবং ইলেক্ট্রনিক ওয়েবসাইটের নিষ্ক্রিয় ভূমিকার শিকার হয়েছেন… বাউটিলিমিট মুক্তচিন্তায় বিশ্বাসী সকল সাংবাদিককে ওবাইদ এর মুক্তি,  তাঁর পুনর্বাসন এবং তাঁর  স্বাধীনভাবে মত প্রকাশের অধিকার সংরক্ষণের জন্য আহ্বান জানাচ্ছে ।

মৌরিতানিয়ান ব্লগার, সিদি এত্তায়েব ওউলদ আল-মৌতাবু তাঁর ব্লগে লেখেন:

عبيد ولد اميجن..سجين الكلمة الحرة والرأي الحر والفكر الحر..
لست أنت أول صحفي ولا آخره يقبع وراء تلك القضبان المعتمة..
ما أنت بالبدع من الأحرار الذين كتب عليهم أن يدفعوا ثمن حريتهم من أرق الجفون وفراق الأحبة والأهل والرفاق..
كلا يا عبيد.. كلا أيها الرفيق…

ওবাইদ ওউলদ এ্যামেগন একজন মুক্ত কথা, মুক্ত বিবেকবুদ্ধি এবং মুক্তচিন্তার কারাবন্দী… আমি প্রথম কিংবা শেষ সাংবাদিক নই যে এই অন্ধকার কাঠগড়ার উপর দাঁড়িয়েছি… আপনিও তাদের থেকে বেশি মুক্ত নন যারা স্বাধীনতার মূল্য কাঁধ পেতে নিয়েছে। প্রিয়জন, পরিবার এবং বন্ধুদের রেখে যারা বিনিদ্র রজনী কাটিয়ে তাঁরা এর মূল্য দিচ্ছে। আপনি ক্রীতদাস নন.. আপনি সহযোদ্ধা নন..

ফ্রি অপিনিওন ব্লগেও তার গ্রেফতার নিয়ে মন্তব্য করা হয় এবং সাংবাদিক ইউনিয়নের অবস্থানের নিন্দা জানানো হয়:

ما يثير الريبة في هذا الأمر هو نقابة الصحفيين التي يبدو أنها مادية أكثر منها حريصة علي حماية الصحفيين وحريتهم وضمان سلامتهم بعيدا عن الشخصنة والمواقف المسبقة.
قبل فترة وجيزة تم فصل احد الصحفيين من إحدى المؤسسات فصدرت البيانات المنددة والمتعاطفة والشروع في إطلاق النداءات الدولية لهذا الغرض، لا يمكن بأي حال من الأحوال ألا يتعاطف مع الصحفي المعزول ماموني ولد المختار وألا يندد بذلك، ولكن الا تعتبر هذه المسالة ازدواجية أو انتقائية وان شئت قل عنصرية، فهناك صحفي قرصن موقعه ولم تتكلم النقابة، اعتقل لم تتكلم كذلك، ماذا بقي بعد لتتحرك وتدلي بدلوها في هذا الموضوع.

এই বিষয়ে সাংবাদিক ইউনিয়নের ভূমিকা আরো বেশি সন্দেহজনক। তাঁদের বস্তুবাদী ভুমিকায় মনে হয় সাংবাদিকদের রক্ষা, তাঁদের স্বাধীনতা রক্ষা কিংবা নিরাপত্তা বিষয় নিশ্চিতকরণের বিষয় থেকে দূরে সরে এসে ব্যক্তিগত আক্রোশ ও পক্ষপাত দোষে দুষ্ট । কিছুদিন আগে একটি প্রতিষ্ঠান থেকে একজন সাংবাদিককে বহিষ্কার করা হয়েছে। নিন্দামূলক এবং সহানুভুতিশীল বিবৃতি প্রকাশিত হয়েছে এবং আন্তর্জাতিক আহ্বান জানানো হয়েছে। এ কারনে কেউ বহিষ্কারকৃত সাংবাদিক মামৌনি ঔল্ড আল-মোখতার এর প্রতি সহানুভূতি জানাচ্ছে না এবং [কর্ম অপসারণের] নিন্দাও জানাচ্ছে না। কিন্তু এই বিষয়টি কি সাদৃশ্যপূর্ণ বা নির্বাচিত নয়? এবং আপনি চাইলে এটিকে বর্ণবাদী হিসেবে ব্যাখ্যা করতে পারেন। এখানে একজন সাংবাদিকের ওয়েবসাইট হ্যাক হয়েছে, ইউনিয়ন এখন পর্যন্ত কোন শব্দ উচ্চারণ করে নি। তিনি যখন গ্রেফতার হন তখনও ইউনিয়ন নিশ্চুপ ছিল। ইউনিয়নের জেগে ওঠার জন্য আর কি ঘটা প্রয়োজন যাতে তারা এই বিষয়ে কথা বলে?

আলোচনা শুরু করুন

লেখকেরা, অনুগ্রহ করে লগ ইন »

নীতিমালা

  • অনুগ্রহ করে অপরের মন্তব্যকে শ্রদ্ধা করুন. যেসব মন্তব্যে গালাগালি, ঘৃণা, অবিবেচনা প্রসূত ব্যক্তিগত আক্রমণ থাকবে সেগুলো প্রকাশের অনুমতি দেয়া হবে না .